মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

একাদশে অনলাইনে ভর্তির আবেদন শুরু
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ১০ আগস্ট ২০২৩, ১১:১২ পূর্বাহ্ণ

একাদশ শ্রেণিতে অনলাইনে ভর্তি আবেদন কার্যক্রম বৃহস্পতিবার (১০ আগস্ট) সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়েছে। এবারও একাদশে ভর্তিতে তিন ধাপে আবেদন গ্রহণ করা হবে।

প্রথম ধাপে ২০ আগস্ট পর্যন্ত আবেদনের সুযোগ পাবেন শিক্ষার্থীরা। দ্বিতীয় ধাপে ১২-১৪ সেপ্টেম্বর এবং তৃতীয় ধাপে ২০-২১ সেপ্টেম্বর আবেদন গ্রহণ করা হবে।

অনলাইন নির্ধারিত ওয়েবসাইটে www.xiclassadmission.gov.bd প্রবেশ করে একাদশ শ্রেণির ভর্তির আবেদন করতে পারবেন। অনলাইন ছাড়া সাধারণ শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ম্যানুয়ালি ভর্তির আবেদন নেওয়া হবে না। এছাড়া প্রতিদিন রাত ১১টা থেকে ১১টা ৫৯ মিনিট পর্যন্ত অনলাইন আবেদন বন্ধ থাকবে।

তবে যেসব শিক্ষার্থী বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন হিসেবে এসএসসি পরীক্ষা উত্তীর্ণ হয়েছে, তারা বোর্ডে ম্যানুয়ালি ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবেন। প্রবাসীদের সন্তান ও বিকেএসপি থেকে পাস করা শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য বোর্ডে ম্যানুয়ালি আবেদনের সুযোগ পাবেন।

ভর্তি ও সেশন ফি
অনলাইনে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন ফি নির্ধারণ করা হয়েছে ১৫০ টাকা। এ ফি দিয়ে সর্বনিম্ন পাঁচটি এবং সর্বোচ্চ ১০টি কলেজে পছন্দ দিতে হবে। একজন শিক্ষার্থী যতগুলো কলেজে আবেদন করবে তার মধ্য থেকে তার মেধা, কোটা ও পছন্দক্রমের ভিত্তিতে একটি কলেজে তার অবস্থান নির্ধারণ করা হবে। শিক্ষার্থীকে ভর্তির প্রাথমিক নিশ্চায়নের সময় ৩৩৫ টাকা রেজিস্ট্রেশন ফি দিতে হবে।

ঢাকা মহানগরীর এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বাংলা ও ইংরেজি উভয় ভার্সনে ভর্তি ফি ৫ হাজার টাকা। ঢাকা মহানগরীর নন-এমপিও কিংবা আংশিক এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বাংলা ভার্সনে ভর্তি ফি সাড়ে ৭ হাজার এবং ইংরেজি ভার্সনে সাড়ে ৮ হাজার টাকা।

ঢাকার বাইরের মহানগরীতে এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বাংলা ও ইংরেজি উভয় ভার্সনে ভর্তি ফি ৩ হাজার টাকা। জেলা পর্যায়ে দুই হাজার টাকা। উপজেলা বা মফস্বলে দেড় হাজার টাকা।

ঢাকার বাইরের মহানগরীতে নন-এমপিও বা আংশিক এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বাংলা ভার্সনে ভর্তি ফি ৫ হাজার টাকা এবং ইংরেজি ভার্সনে ৬ হাজার টাকা। জেলা পর্যায়ে বাংলা ভার্সনে ৩ হাজার টাকা এবং ইংরেজি ভার্সনে চার হাজার টাকা। উপজেলা বা মফস্বলে বাংলা ভার্সনে আড়াই হাজার টাকা এবং ইংরেজি ভার্সনে তিন হাজার টাকা।

অন্যদিকে সরকারি কলেজগুলোতে সরকারি পরিপত্র অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ভর্তি ফি নেওয়া হবে।

আগামী ৫ সেপ্টেম্বর প্রথম ধাপের ফল প্রকাশ করা হবে। ভর্তির ক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের কোনো পরীক্ষা নেওয়া হবে না। শিক্ষার্থীদের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে ভর্তি করা হবে। ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে কলেজে ভর্তি শুরু হবে। আর একাদশে ক্লাস শুরু হতে পারে ৮ অক্টোবর।

সারাদেশের কলেজগুলোতে ২৫ লাখের বেশি আসন রয়েছে। এ বছর সব শিক্ষা বোর্ড মিলিয়ে পাস করেছে ১৬ লাখ ৪১ হাজারের কিছু বেশি শিক্ষার্থী। সেই হিসাবে সাড়ে ৮ লাখেরও বেশি আসন খালি পড়ে থাকবে।

গত ২৮ জুলাই এ বছরের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এবার ১১টি শিক্ষা বোর্ডে গড় পাসের হার ৮০ দশমিক ৩৯ শতাংশ। পাস করেছে ১৬ লাখ ৪১ হাজার শিক্ষার্থী। এ বছর মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৮৩ হাজার ৫৭৮ জন।

 







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ