মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

একাদশে ভর্তি: শিক্ষার্থীর চেয়ে আসন বেশি সাড়ে ৮ লাখ
প্রকাশ: রবিবার, ৩০ জুলাই ২০২৩, ০১:৪১ অপরাহ্ণ

এ বছর এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে আগামী ১০ আগস্ট থেকে। গত কয়েক বছরের মতো এবারও কলেজে আসন পাওয়া নিয়ে শঙ্কা নেই শিক্ষার্থীদের। এবার এসএসসিতে পাস করা সব শিক্ষার্থী একাদশে ভর্তি হলেও প্রায় সাড়ে আট লাখ আসন খালি পড়ে থাকবে।

শনিবার (২৯ জুলাই) ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক তপন কুমার সরকার এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, সারাদেশের কলেজগুলোতে ২৫ লাখের বেশি আসন রয়েছে। এবার সব শিক্ষা বোর্ড মিলিয়ে পাস করেছে ১৬ লাখ ৪১ হাজারের কিছু বেশি শিক্ষার্থী। সেই হিসাবে সাড়ে আট লাখেরও বেশি আসন খালি পড়ে থাকবে। তাই শিক্ষার্থীদের একাদশে ভর্তিতে আসন পাওয়া নিয়ে কোনো শঙ্কা নেই।

একাদশ শ্রেণিতে কখনোই আসন সংকট হয় না জানিয়ে তপন কুমার সরকার বলেন, এসএসসির ফলাফলের ভিত্তিতে শিক্ষার্থীরা পছন্দের কলেজ পাবেন। অনলাইনে আবেদন করতে হবে। পছন্দের তালিকা ও ফল বিবেচনায় নিয়ে শিক্ষার্থীদের কলেজ বরাদ্দ দেওয়া হবে।

তিনি আরও বলেন, আসন সংকট না থাকলেও নামিদামি কলেজগুলোতে ভর্তির লড়াই চলবে। সবাই মানসম্মত কলেজে ভর্তি হতে চায়। কিন্তু ভালো মানের কলেজ কম, আসনও কম। এগুলোতে মূলত মাধ্যমিকে জিপিএ-৫ পাওয়াদেরই লড়াই হয়। রাজধানী ঢাকা ও অন্যান্য জেলা শহরে ভালো কলেজে আসন রয়েছে মাত্র ৫০ হাজারের কিছু বেশি। এসব কলেজে অধিকাংশ শিক্ষার্থী-অভিভাবকের নজর থাকবে।

এদিকে, ঢাকার শীর্ষ কলেজগুলোতে বরাবরই ভর্তির লড়াইটা বেশি। ঢাকার কলেজগুলোর মধ্যে ছেলেদের পছন্দের শীর্ষে নটর ডেম কলেজ। এবারও নটর ডেম, সেন্ট জোসেফ ও হলিক্রস কলেজে পরীক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তি করানো হবে।

এদিকে, চলতি সপ্তাহে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির নীতিমালা প্রকাশ করবে শিক্ষা বোর্ডগুলো। তবে নীতিমালায় কোনো পরিবর্তন আনা হবে না বলে জানান আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটির সভাপতি ও ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. তপন কুমার সরকার।

শুক্রবার (২৮ জুলাই) এ বছরের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এবার ১১টি শিক্ষা বোর্ডে গড় পাসের হার ৮০ দশমিক ৩৯ শতাংশ। পাস করেছে ১৬ লাখ ৪১ হাজার শিক্ষার্থী। গত বছর (২০২২ সাল) পাসের হার ছিল ৮৭ দশমিক ৪৪।

এদিকে, এবার মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে এক লাখ ৮৩ হাজার ৫৭৮ জন। গত বছর জিপিএ-৫ পেয়েছিল দুই লাখ ৬৯ হাজার ৬০২ জন। ফলে এবার এসএসসি ও সমমানে পাসের হার ও জিপিএ-৫ দুটোই কমেছে। পূর্ণ নম্বরের ওপর প্রশ্নপত্র ও সব বিষয়ের পরীক্ষা হওয়ায় এবার ফলাফল নিম্নমুখী বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

 







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ