মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের গুলিতে ২ সেনাসদস্য নিহত
প্রকাশ: বুধবার, ১৭ মে ২০২৩, ০৫:১৫ অপরাহ্ণ

বান্দরবানের রুমা উপজেলার অন্তর্গত সুংসুংপাড়ায় সেনাবাহিনীর টহল টিমের ওপর কুকি চিন ন্যাশনাল আর্মি (কেএনএ) সন্ত্রাসীদের গুলিতে সেনাবাহিনীর দুই সদস্য নিহত হয়েছেন। এ সময় সেনাবাহিনীর আরও দুই কর্মকর্তা আহত হয়েছেন। তারা চট্টগ্রাম সিএমএইচে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নিহতরা হলেন, রুমা জোন (২৮) বী‌র ক্যাম্পের সৈ‌নিক মো. আলতাফ আহম্মদ ও মো. তৌহিদ।

আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতরের (আইসপিআর) পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবু হায়দার মো. রাশেলুজ্জামান সেনা সদস্যদের হতাহতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে বান্দরবানের রুমা উপজেলার অন্তর্গত সুংসুংপাড়া সেনা ক্যাম্পের আওতাধীন জারুলছড়িপাড়া নামক স্থানে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের আস্তানার খবর পাওয়া যায়। গতকাল মঙ্গলবার (১৬ মে) সুংসুংপাড়া আর্মি ক্যাম্প থেকে মেজর মনোয়ারের নেতৃত্বে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি টহল দল সংশ্লিষ্ট স্থানে যায়।

টহল দলটি জারুলছড়িপাড়ার কাছে পানিরছড়ার কাছাকাছি পৌঁছালে আনুমানিক দিবাগত রাত ১টা ৫৫ মিনিটে কুকি চিন ন্যাশনাল আর্মি (কেএনএ) সন্ত্রাসীদের ইম্প্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস (আইইডি) বিস্ফোরণ হয় এবং অতর্কিত গুলিবর্ষণ শুরু হয়। এ সময় সেনাবাহিনীর দুজন অফিসার ও দুজন সৈনিক আহত হন। তাদের উদ্ধার করে হেলিকপ্টারে চট্টগ্রাম সিএমএইচে নেওয়া হয়।

পরে চিকিৎসারত অবস্থায় আহত দুই সৈনিক মৃত্যুবরণ করেন। আহত দুজন অফিসার বর্তমানে চট্টগ্রাম সিএমএইচে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবু হায়দার জানান, দেশমাতৃকার জন্য আত্মোৎসর্গকারী শহীদ সেনাসদস্যদের অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যুতে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রধান এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ শোক প্রকাশ করেছেন ও তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি কুকি চিন ন্যাশনাল আর্মি (কেএনএ) বান্দরবানের রুমা, রোয়াংছড়ি ও থানচি উপজেলার গহিন অরণ্যে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টি করার চেষ্টা করছে।







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ