শনিবার ১৮ মে ২০২৪ ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ব্রাজিলে পুলিশের অভিযানে নিহত ৪৫
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ০৩ আগস্ট ২০২৩, ০৭:৪৪ অপরাহ্ণ

ব্রাজিলে মাদক চক্রের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান, নিহত ৪৫

ব্রাজিলে মাদক চক্রের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান, নিহত ৪৫
লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে পুলিশের অভিযানে কমপক্ষে ৪৫ জন নিহত হয়েছেন। দেশটির পৃথক তিনটি প্রদেশে গত কয়েকদিনে মাদক চক্রকে লক্ষ্য করে চালানো পুলিশের এই অভিযানে প্রাণহানির এই ঘটনা ঘটে।

মূলত মাদক চোরাকারবারীদের হাতে পুলিশের এক কর্মকর্তা নিহতের ঘটনার পর তাদের এই অভিযান শুরু হয়। বৃহস্পতিবার (৩ আগস্ট) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ব্রাজিলের তিনটি প্রদেশে মাদক চক্রকে লক্ষ্য করে চালানো পুলিশের অভিযানে অন্তত ৪৫ জন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে রিও ডি জেনেরিওতে সর্বশেষ অভিযানে নিহত হয়েছেন ১০ জন।

পুলিশ বলেছে, তারা কমপ্লেক্সো দা পেনহা এলাকায় গুলিবর্ষণের শিকার হলে পাল্টা গুলি চালায় এবং এতে কমপক্ষে ১০ জন নিহত হন। এর আগে অপারেশন শিল্ড নামে অভিহিত করা একটি অভিযান চালানো হয় সাও পাওলো প্রদেশে। পাঁচ দিনের সেই অভিযানের সময় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে ১৬ জন মারা যান।

সাও পাওলো প্রদেশে অভিযানের সময় ৫৮ জনকে গ্রেপ্তারও করা হয়। এছাড়া উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ বাহিয়ার কর্মকর্তারা বলছেন, গত শুক্রবার থেকে সেখানে ১৯ জন সন্দেহভাজনকে হত্যা করা হয়েছে।

ব্রাজিলের সাওপাওলোর উপকূলীয় শহর গুয়ারুজাতে গত বৃহস্পতিবার মাদক চোরাকারবারীদের হাতে নিহত হন পুলিশের এক কর্মকর্তা। এ ঘটনার পর পুরো সাওপাওলোতে তাণ্ডব চালায় পুলিশ। আর এরপরই তিনটি প্রদেশে মাদক চক্রকে লক্ষ্য করে পুলিশ অভিযানে নামে।

স্থানীয় মিডিয়ার খবর অনুযায়ী, অভিযানের সময় ৩৮৫ কেজি মাদকদ্রব্যের পাশাপাশি বন্দুকও জব্দ করেছে পুলিশ।

অবশ্য গুয়ারুজায় অভিযানের সমালোচনা করেছিলেন ব্রাজিলের বিচারমন্ত্রী ফ্লাভিও ডিনো। তিনি বলেছিলেন, পুলিশের প্রতিক্রিয়া সংঘটিত কোনও অপরাধের সমান হতে পারে না। এছাড়া সাও পাওলো প্রদেশের গভর্নর তারসিসিও ডি ফ্রেইতাস বলেছেন, সংঘর্ষের সময় নিহতদের মধ্যে দু’জন পুলিশ কর্মকর্তাও রয়েছেন।

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল বলেছে, গুয়ারুজায় চালানো পুলিশের অভিযানে আসলে ‘একজন পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যুর প্রতিশোধ নেওয়ার স্পষ্ট লক্ষণ’ রয়েছে।

অন্যদিকে স্থানীয় মিডিয়ার রিপোর্ট অনুযায়ী, রিও ডি জেনেরিওতে বুধবার নিহত ১০ জনের মধ্যে একজন মাদক পাচারকারী এবং একজন পাচারকারী রয়েছেন। অভিযানে এক পুলিশ কর্মকর্তাসহ চারজন আহত হয়েছেন।

রিও ডি জেনেরিওর মিলিটারি পুলিশের মতে, মাদক পাচার চক্রের নেতাদের বৈঠকের বিষয়ে গোপন তথ্য পাওয়ার পর কমপ্লেক্সো দা পেনহা-তে অভিযান শুরু করা হয়। প্রত্যক্ষদর্শীরা স্থানীয় মিডিয়াকে বলেছেন, তারা বেশ কয়েকটি গুলির শব্দ শুনেছেন এবং ভারী অস্ত্রধারী গ্যাং সদস্যদের ও পুলিশের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে।

রিও প্রদেশের আইনসভার সদস্য তালিরিয়া পেট্রোন এই অভিযানের নিন্দা করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘অভিযানের নামে কোনও এলাকার জীবনযাত্রাকে এভাবে নরকে পরিণত করার জন্য রাষ্ট্রের কাছে কোনও ব্যাখ্যা নেই’।

বিবিসি বলছে, কমপ্লেক্সো দা পেনহার আশপাশের স্কুলগুলো বুধবার বন্ধ ছিল এবং প্রায় ৩ হাজার ২২০ জন শিক্ষার্থীকে বাড়িতে থাকতে বাধ্য করা হয়েছে। এছাড়া জাতীয় স্বাস্থ্য পরিষেবার উদ্যোগে বাড়ি পরিদর্শনের কাজও এদিন নিরাপত্তা উদ্বেগের কারণে স্থগিত করা হয়।

ব্রাজিলে সশস্ত্র সহিংসতার তথ্য অনুসন্ধান করে ইনস্টিটিউট ফোগো ক্রুজাডো নামে একটি সংস্থা। তারা পুলিশের এসব অভিযানকে ‘গণহত্যা’ হিসাবে আখ্যায়িত করেছে।







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ